তানভীরুল আলমঃ

করোনাভাইরাসের নতুন ধরন অমিক্রনের সংক্রমণ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ছে। অমিক্রনের পর মহামারি পরিস্থিতি কোন দিকে যেতে পারে, তা নিয়ে নানা বক্তব্য দিয়েছেন বিজ্ঞানী ও বিশেষজ্ঞরা। কেউ বলছেন, রূপান্তরিত নতুন আরও ধরন আসতে পারে। আবার কেউ বলছেন, মহামারির শেষ দিকে এসে বিপজ্জনক হয়ে উঠতে পারে অমিক্রন। বিশেষজ্ঞদের এসব তথ্য নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে হিন্দুস্তান টাইমস।

বোস্টন বিশ্ববিদ্যালয়ের মহামারি বিশেষজ্ঞ লিওনার্দো মারতিনেজ বলেন, অমিক্রন ধরনের সংক্রমণ যেভাবে সারা বিশ্বে হচ্ছে তাতে ধারণা করা হচ্ছে, এর আরও নতুন রূপান্তর হতে পারে। তবে এই রূপান্তর কখন, কীভাবে হতে পারে সে বিষয়ে অনুমান করা কঠিন। ভবিষ্যতে রূপান্তরিত এই ধরনগুলোর সংক্রমণ মৃদু হবে কি না, সেটাও নিশ্চিতভাবে বলা কঠিন।

যুক্তরাজ্যের বিশেষজ্ঞদের অনুমান, গ্রীষ্মের শুরুতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ আরও বাড়তে পারে। অমিক্রন ধরনের পর যেকোনো কিছু ঘটতে পারে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁরা বলছেন, এরপর মহামারি দুর্বল হতে পারে। আবার দ্রুত আরও নতুন ধরনের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়তে পারে।

বোস্টন বিশ্ববিদ্যালয়ের মহামারি বিশেষজ্ঞ লিওনার্দো মারতিনেজ বলেন, অমিক্রন ধরনের সংক্রমণ যেভাবে সারা বিশ্বে হচ্ছে তাতে ধারণা করা হচ্ছে, এর আরও নতুন রূপান্তর হতে পারে। তবে এই রূপান্তর কখন, কীভাবে হতে পারে সে বিষয়ে অনুমান করা কঠিন। ভবিষ্যতে রূপান্তরিত এই ধরনগুলোর সংক্রমণ মৃদু হবে কি না, সেটাও নিশ্চিতভাবে বলা কঠিন।

প্রথমে ভাবা হয়েছিল, করোনার অমিক্রন ধরনের সংক্রমণ খুব বেশি গুরুতর হবে না। তবে বিজ্ঞানীরা বলছেন, মহামারির শেষ পর্যায়ে এসে আরও বিপজ্জনক ধরনের সংক্রমণ হতে পারে।

লিওনার্দো আরও বলেন, অমিক্রনের দ্রুত সংক্রমণ হচ্ছে। এতে আরও বেশি রূপান্তরের আশঙ্কা রয়েছে।

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের সংক্রামকরোগবিষয়ক বিশেষজ্ঞ স্টুয়ার্ট ক্যাম্পবেল রে বলেন, অনেকের ধারণা, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দুর্বল হয়ে পড়ছে। তবে এমনটা মনে করার খুব বেশি কারণ নেই। আমার মনে হয় না সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ভাইরাসটি কম প্রাণঘাতী হবে এমনটা ভাবার খুব বেশি সুযোগ আছে।

দ্য গার্ডিয়ানের খবরে জানানো হয়, যুক্তরাজ্যের সায়েন্টিফিক অ্যাডাইজরি গ্রুপ ফর ইমার্জেন্সিস বলছে, গরমের শুরুতে অমিক্রন ধরনের নতুন সংক্রমণ হতে পারে। কারণ, এ সময় মানুষ সামাজিক কর্মকাণ্ড শুরু করবে। এ ছাড়া এখন অমিক্রনে সংক্রমিত হয়ে যাঁদের প্রতিরোধক্ষমতা তৈরি হয়েছে, তা আবার ওই সময় কমে যাবে।
বিশেষজ্ঞদের ধারণা অনুসারে, অমিক্রন ধরনের সংক্রমণের পর কী হতে পারে এ রকম পাঁচটি আভাস এখানে দেওয়া হলো:

১. বিশেষজ্ঞরা বলছেন অমিক্রন ধরনে একাধিকবার সংক্রমণ হতে পারে। ডেলটা, করোনার অন্য ধরন, এমনকি অমিক্রনেও একাধিকবার সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি আছে।

২. প্রাথমিকভাবে অমিক্রন কম প্রাণঘাতী বলে মনে হলেও পরবর্তী সময় এটি রূপ বদলাতে পারে। করোনাভাইরাস সর্দিজ্বরের মতো মৃদু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এটি কম প্রাণঘাতী থাকবে না।

৩. অমিক্রনে সংক্রমিত ব্যক্তিদের মধ্যে হালকা উপসর্গ দেখা যায়। অন্যদের মধ্যে অমিক্রন ছড়িয়ে পড়তে পারে।

৪. করোনাভাইরাসের অমিক্রন ধরন পশুপাখির মধ্যেও ছড়িয়ে পড়তে পারে। পশুপাখি থেকে এটি আবার নতুন রূপে মানুষের মধ্যে সংক্রমিত হতে পারে।

৫.অমিক্রন ডেলটার সঙ্গে মিলে নতুন ধরন তৈরি করতে পারে। নতুন সেই ধরনের মধ্যে ডেলটা ও অমিক্রন দুটোরই বৈশিষ্ট্য থাকতে পারে।