গতকাল বৃহস্পতিবার (২১ জুলাই) আলেমাও বস্তি ঘেরাও করে ৪ শতাধিক পুলিশ সদস্য। তাদের সাথে ছিল ৪টি হেলিকপ্টার এবং ১০টি বুলেটপ্রুফ গাড়ি। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মূলত মাদক চোরাকারবারি এবং খুনি-লুটেরাদের আটক করাই ছিল পুলিশের উদ্দেশ্য। কিন্তু নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়েই হামলা চালায় গ্যাং মেম্বাররা।”

দিনভর চলে সাঁড়াশি অভিযান, ধরপাকড়। চোরাকারবারিরা সেনা ছদ্মবেশে থাকায় অনেককে শনাক্ত করতে বেগ পেতে হয় পুলিশের। এ দিকে, অপরাধী চক্রের অর্ধ-শতাধিক সদস্যকে হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ।

জবানবন্দিতে চোরাকারবারিরা জানিয়েছে, প্রতিবেশী বস্তিগুলোতে তারা হামলার পরিকল্পনা করছিলেন। অভিযানে আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।