চীনের রিয়েল এস্টেট খাতে দেখা দিয়েছে চরম সংকট। সহস্রাধিক আবাসনক্রেতা ‘বন্ধকী ঋণ বর্জন’ করা শুরু করেছে। সেই সঙ্গে চলমান ও বকেয়া আবাসন প্রকল্পের ঋণ পরিশোধ করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন অনেকে।

গত ২৩ জুলাই ইকোনোমিক টাইমের এক প্রতিবেদনে এই তথ্য উঠে আসে। ওই প্রতিবেদনে জানা গেছে, চলতি বছরের ১৮ জুলাই পর্যন্ত দেশটির ৮০টি শহরে ও ২০০ প্রকল্পের আবাসন খাতের ক্রেতাগণ বন্ধকী ঋণ পরিশোধ করবে না বলে হুমকি দিয়েছে।

এদিকে জিএফ সিকিউরিটিজ কোম্পানি ও ডয়েচ ব্যাংক এজির বিশ্লেষকদের দেয়া তথ্য মতে, চীনের উন্নয়নে মোট ২৯৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বা ২ ট্রিলিয়ন ইউয়ান (চীনা মুদ্রা) ব্যয় হয়েছে। কিন্তু এগুলো আদায় করা হয়নি।

এক বছর আগে, চীনে যে পরিমাণ আবাসন বিক্রয় হত সে পরিমাণ বিক্রয় চলতি বছরে হয়নি। এক বছরে এই খাতে বিক্রি কমেছে ৬০ শতাংশ। রিয়েল এস্টেট খাতে এমন পতন চীনের ইতিহাসে আগে কখনো ঘটেনি। এর জন্য ব্যবসায়ীরা সরকারের ‘জিরো কোভিড কেসেস’ কৌশলকে দায়ী করছেন।