রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার বিদিরপুর গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করার অভিযোগ উঠেছে।

আজ ১৪ সেপ্টেম্বর (বৃহস্পতিবার) দুপুর ১.৩০ মিনিটে বিদিরপুর বাজার সংলগ্ন এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

হামলায় আহত ব্যক্তির নাম মো: ময়দুল ইসলাম (৪৫)।সে বিদিরপুর বাজার সংলগ্ন এলাকার বাসিন্দা এবং মৃত আব্দুর রহমানের ছেলে।সে পেশায় একজন হার্ডওয়্যার ব্যবসায়ী।

আহতের বক্তব্য সুত্রে জানা যায়, বিদিরপুর মৌজার ৫০২ দাগের জমিতে দাদির অংশ মোতাবেক পেয়ে দীর্ঘদিন থেকে ভোগদখল করে আসছে ময়দুল।এরই পরিপেক্ষিতে আজ দুপুরে একই গ্রামের দারুল শেখের ছেলে সাগর ও হযরত জোরপূর্বক জমিতে গাছপালা কাটতে শুরু করে।একপর্যায়ে জমির প্রকৃত মালিক ময়দুল বাঁধা দিলে উল্লেখিত তিন ব্যক্তি মিলে হত্যার উদেশ্যে ময়দুলকে কোঁদাল সহ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে এলোপাথারিভাবে পিটিয়ে আঘাত করতে থাকে।একপর্যায়ে সে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে।এসময় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে প্রেমতলী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে অবস্থা গুরুতর দেখে চিকিৎসকরা তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে রাজশাহী মেডিকেল হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

হামলার শিকার ময়দুল বর্তমানে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ৮নং ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছে।এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানিয়েছেন আহতের ভাই।

এ ব্যাপারে গোদাগাড়ী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ কামরুল ইসলাম বলেন, এখন পর্যন্ত কোনো অভিযোগ পাইনি।তবে আহত ব্যক্তি বর্তমানে চিকিৎসা নিচ্ছেন।অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।