খন্দকার মোশতাকের নির্দেশে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি জাতীয় চার নেতাকে জিয়াউর রহমানের অনুগত সেনারা হত্যা করেছিল বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে ও উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

ঐতিহাসিক জেলহত্যা দিবসে বৃহস্পতিবার (৩ নভেম্বর) সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে নিজের ভেরিফায়েড পেজে দেওয়া এক পোস্টে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

ফেসবুক পোস্টে সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, ১৯৭৫ সালের ৩ নভেম্বর জাতির ভাগ্যাকাশে নেমে আসে আরেকটি ভয়াল রাত। মোশতাকের সরাসরি নির্দেশে- ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে আটক সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দীন আহমদ, মনসুর আলী ও কামারুজ্জামানকে হত্যার জন্য- ঘাতক পাঠায় সেনাপ্রধান জিয়াউর রহমানের অনুগত সেনারা।

তিনি বলেন, রাষ্ট্রবিরোধীরা চাইলেও জাতীয় চার নেতার অবদানকে মুছে ফেলা যায়নি। বরং তাঁদের মুখ আজও উদ্ভাসিত। এক বিশাল উত্তরাধিকার, ব্যাপ্ত দেশপ্রেম ও বিজয়ের মুকুট সঙ্গে নিয়ে স্বাধীন বাংলাদেশের যে পদচারণা শুরু হয়েছিল, মুক্তিযুদ্ধের সাফল্যে যে ষড়যন্ত্রের জাল ছিন্ন হয়েছিল, আবার তা বোনা শুরু হয় মাত্র কয়েক বছরের ব্যবধানে। ১৫ই আগস্ট, ১৯৭৫ সালে নির্মমভাবে সপরিবারে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যা করে দেশকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার উল্টো স্রোতের দিকে টেনে নেওয়া হয়।

পোস্টটিতে জাতীয় চার নেতার প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা জানিয়ে একটি ভিডিও যুক্ত করেছেন সজীব ওয়াজেদ জয়।