বিএনপির প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে পুলিশ-বিএনপির সংঘর্ষের ঘটনায় ৮৭১ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করা হয়েছে। মামলায় ৭১ জনকে এজহারনামীয় আসামি ও ৮০০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। এই মামলায় ১০ জনকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। নারায়ণগঞ্জ সদর থানার পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) কামরুজ্জামান বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন।

নারায়ণগঞ্জ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মোঃ আমীর খসরু বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, পুলিশের উপর হামলা ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও বিষ্ফারন আইনে এ মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। এ মামলায় ৭১ জনের নাম উল্লেখ্য ও ৮০০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করে মামলাটি দায়ের করা হয়।

তিনি বলেন, এ মামলায় ১০ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আদালত সূত্রে জানা গেছে, পুলিশের দায়ের করা মামলায় দশ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে দশ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে উঠানো হয়েছে। আদালতের বিচারক চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাজী মোহাম্মদ মোহসেন রিমান্ড শুনানির দিন আগামী রোববার ধার্য্য করে আসামীদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

উল্লেখ্য, বিএনপির ৪৪ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে নারায়ণগঞ্জ ২ নং রেলগেইট এলাকায় বিএনপির একটি শোভাযাত্রা বের হয়। এসময় শোভাযাত্রাটিতে পুলিশ বাধা দেয়। একপর্যায়ে পুলিশের সাথে বিএনপির নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

প্রায় তিন ঘণ্টার সংঘর্ষে নারায়ণগঞ্জে রণক্ষেত্র তৈরি হয়। পুলিশের পক্ষ থেকে গুলি টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ অপরদিকে বিএনপির নেতাকর্মীদের পক্ষ থেকে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করা হয়। এসময় পুলিশের গুলিতে শাওন নামে এক যুবদল কর্মী নিহত হয়। এছাড়াও ২৫/৩০ জন বিএনপির নেতাকর্মী গুলিবিদ্ধ হয়। এঘটনায় আরও শতাধিক লোক আহত হয়েছে।